মার্কিন পৃষ্ঠপোষকতায় বিএনপির নেতৃত্বে নতুন জোট আসছে

আসন্ন জাতীয় নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে একটি সর্বদলীয় মোর্চা গঠনের উদ্যোগে সহযোগিতা করছে ঢাকাস্থ মার্কিন দূতাবাস। আগামী নির্বাচনে বিএনপির নেতৃত্বে একটি উদারপন্থীদের নির্বাচনী প্ল্যাটফর্ম গঠনে রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে কথা বলছে দূতাবাসের গুরুত্বপূর্ণ কর্মকর্তারা। মূলত: মার্কিন উদ্যোগের কারণেই চলতি মাসেই বিএনপির নেতৃত্বে সংলাপ শুরু হচ্ছে। এই সংলাপে বিএনপির সঙ্গে থাকবে বিকল্পধারা, নাগরিক ঐক্য, জেএসডি এবং গণফোরাম। আসতে পারে কাদের সিদ্দিকী, মাহমুদুর রহমানের নেতৃত্বধীন দলগুলো। সুত্র জানায়, সফল ভাবে সংলাপ প্রক্রিয়া সম্পন্ন হলে আগামী আগস্ট মাসে একটি নতুন জোট আত্মপ্রকাশ করতে পারে। এই জোটই আগামী নির্বাচনে অংশগ্রহণ করতে পারে।

তবে গঠিতব্য জোটের নেতা কে হবেন তা নিয়ে এবং ২০ দলীয় জোটে জামাতের উপস্থিতি নিয়ে কিছুটা সংশয় থাকলেও খুব শিগগিরই যে বিএনপি বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের সঙ্গে আলোচনায় বসছে সেটি নিশ্চিত। জোট গঠন উপলক্ষে খুাটনাটি ঠিক করতে এবং বিভিন্ন পর্যায়ে আলাপ আলোচনার জন্য বিএনপি মহাসচিব মীর্জা আলমগীর ইতোমধ্যে লন্ডন সফর করে
ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের দিকনির্দেশনা লাভ করেছেন। অন্যদিকে ডক্টর কামাল হোসেনও মাসব্যাপি যুক্তরাষ্ট্র সফর শেষ করে দেশে ফিরেছেন।

নতুন জোট গঠনের আলোচনার মধ্যে যুক্ত হয়েছে আরও দু’টি বিষয়- বিরোধী জোটের আন্দোলন এবং নিরপেক্ষ অন্তর্বতী সরকারের বিষয় নিয়ে কূটনীতিকদের দৌড়ঝাপ। গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ভোট কারচুপি ও অনিয়ম নিয়ে মার্কিন রাষ্ট্রদূতের কড়া মন্তব্যের পরে সরকার তীব্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে, এমনকি যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আ’লীগ সরকারের সম্পর্কের অবনতির হুমকিও এসেছে। মোটকথা নতুন জোট গঠন, আন্দোলন, নিরপেক্ষ সরকার, এবং নির্বাচন প্রকৃয়া একটি আরেকটির সাথে সম্পর্কযুক্ত হয়ে কাজ করছে।

Facebook Comments
Content Protection by DMCA.com

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.